হাতে আপনার ১০ টাকার এই নোট রয়েছে? তবে আপনিই বস, হবেন মালামাল

পুরনো কিন্তু অ্যান্টিক জিনিসপত্রের প্রতি বরাবরই আধুনিক মানুষের বেশ টান থাকে। আমা’দের মধ্যে এমন অনেকেই আছেন যারা পুরনো আসবাবপত্র, কয়েন, নোট, ডাকটিকিট জমাতে ভালোবাসেন।

অনেকের কাছেই তা আবার নিতান্ত শখ স্বরূপ হয়ে থাকে। কথায় আছে, “শখের দাম লাখ টাকা”। পুরনো কয়েন, নোট জমানো যদি আপনার শখ হয়ে থাকে, তাহলে সেই শখের বিনিময়ে আপনি লাখ টাকা না হোক অন্তত ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকা আয় করতে পারবেন।

কিভাবে তা করা সম্ভব? এমন বেশ কিছু ওয়েবসাইট আছে যেখানে গিয়ে আপনি আপনার সঞ্চিত সম্ভারের থেকে পুরনো নোট এবং কয়েন বেচতে পারবেন। এরজন্য আপনাকে কোথাও যেতে হবে, বেশি ঝক্কিও পোহাতে হবে না।

বাড়িতে বসে অনলাইন প্লাটফর্মে চোখ রেখে আপনি মোটা টাকা ইনকাম করতে পারেন। এই প্রতিবেদনে আজ সেরকমই একটি বিশেষ সুযোগের সন্ধান দেওয়া রইলো।

আপনার কাছে যদি ১৯৪৩ সালে সেই পুরোনো দশ টাকার নোট থেকে থাকে, যার এক পিঠে অশোক স্তম্ভ এবং অন্য পথে একটি নৌকার ছবি দেওয়া রয়েছে, তাহলে সেই টাকার বিনিময়ে আপনি ২৫ হাজার টাকা পর্যন্ত আয় করতে পারেন।

১৯৪৩ সালে ব্রিটিশ সরকারের আমলে ছাপানো সেই দশ টাকার নোটের বর্তমান মূল্য প্রায় ২৫ হাজার টাকা ছুঁই ছুঁই। তাহলে আর দেরি কেন? আজই আপনার সঞ্চিত সম্ভার থেকে বের করে আনুন সেই ব্রিটিশ আমলের নোট।

যে নোটে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার তৎকালীন গভর্নর সিডি দেশমুখের স্বাক্ষর রয়েছে। সেই নোটের বিনিময় আপনিও হয়ে উঠতে পারেন কোটিপতি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *