এক মেয়ের দুই বয়ফ্রেন্ড, দুজনে সামনা সামনি হতেই ঘটল বিপত্তি, তুমুল ভাইরাল ভিডিও

আজকালকার দিনে “প্রেম” শব্দটি কারো কাছে খুবই জনপ্রিয়, কারো কাছে আবার খুবই দুঃখের, আবার কেউ প্রেমের নাম শুনলে রেগেই আগুন। আসলে প্রেম যেমন ভাবে যার জীবনে প্রবেশ করেছে সেটাই তার অভিজ্ঞতা হয়ে রয়ে গিয়েছে।

কেউ কখনো প্রেমে ধোকা খেয়েছেন। কেউ আবার প্রেম করে ভালোবেসে বিয়ে করেছেন। কেউ আবার প্রেম করতে কি এমন ধোঁকা খেয়ে ফেলছে, এ জীবনে আর প্রেম করার নামো করবেন না।

তাইতো প্রেম শব্দটির ব্যাখ্যা এক একজনের কাছে এক এক রকম।তবে এবার প্রেম করতে গিয়ে ধরা পড়লেন এক তরুণী। তবে একটি প্রেম নয়, দুই দুইটি প্রেম করছিলেন এই বড় হৃদয়ের প্রেমিকা।

এক প্রেমিকের সঙ্গে ঘুরতে বেরিয়ে অন্য প্রেমিকের হাতে ধরা পড়ে গেলেন তিনি। তেমনই একটা ভিডিও সম্প্রতিক সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক ভাইরাল হয়েছে। কোন প্রেমিককে বেছে নেবেন সেটাই ভেবে অস্থির প্রেমিকা।

ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় হাসতেই হাসাহাসি শুরু হয়ে গিয়েছে দর্শক মহলের কাছে। এবার আসা যাক বিস্তারিত বর্ণনায়। একটি গ্রাম্য এলাকার মধ্যে এক তরুনীর হাত ধরে দাঁড়িয়েছিল এক যুবক।

সম্ভবত তারা নিজেদের সম্পর্ক নিয়ে আলোচনা করছিলেন। হঠাৎ করেই একজন যুবক এসে হাজির হলো তাদের মধ্যে। এরপর দ্বিতীয় যুবক দাবি করে যে, এই তরুণের সঙ্গে তার বছর দুয়েকের সম্পর্ক।

তিনি হঠাৎ করে এসে দেখেন তার প্রেমিকা অন্য একটি ছেলের হাত ধরে দাঁড়িয়ে রয়েছে। বিষয়টি মেনে নিতে পারেননি তিনি। এদিকে প্রথম যুবক জানায় তার সাথে ওই যুবতী প্রায় দুই থেকে তিন বছর প্রেম করেছে।

তিনজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা শুরু হতেই ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে যায় প্রচুর লোক। ওই দুই যুবককে জিজ্ঞাসাবাদ করে বিষয়টি জানতে পারেন এলাকার ব্যক্তিরা। পাড়ার মুরুব্বীরাও হাজির ছিলেন সেখানে। প্রথম যুবকটি বলে সেখানে প্রেমিকাকে ছাড়া বাঁচবে না। অন্যদিকে দ্বিতীয় যুবকটিও তার প্রেমিকাকে ছাড়তে নারাজ।

অবশেষে ওই তরুণীকে জিজ্ঞাসা করা হয়, সে কাকে চায়। ওই তরুণী যাকে চাইবে তার সাথেই বিয়ে দেওয়া হবে তার। কিন্তু ওই তরুণী কোনো সদুত্তর দেয় না। লোকজনের চাপাচাপিতে নিজের বাড়ি কোথায় সেটা স্বীকার করে নিতে বাধ্য হয় ওই তরুণী। কিন্তু সেই কেন দুজন প্রেমিকের সাথে একসাথে প্রেম করেছে এ বিষয়ে কোনো সদুত্তর দেয়নি ওই তরুণী।

জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা যায় সে কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্রী। মাত্র এতোটুকু বয়সে এই ধরনের মানসিকতা দেখে হতবাক হয়ে যান এলাকার লোকজন। তবে আজকালকার দিনে এই ধরনের ঘটনা আখছার ঘটছে। তাই সতর্ক হয়ে সম্পর্কে জানা উচিত। এমন সম্পর্কে জড়াতে হবে যেখানে বাড়ির মতামত এবং নিজেদের মতামত দুটোই মিলে যায়।

বহুক্ষণ ধরে এলাকার লোকজন ওই তরুণীকে বিভিন্ন ধরনের প্রশ্ন করলেও কোনো প্রশ্নের জবাব সে ঠিকমত দেইনি। পরিবর্তে মিটিমিটি হাসতে দেখা গিয়েছে তাকে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রচুর সংখ্যক লোক জড়ো হয়ে যায় এলাকায়। তবে এখনো পর্যন্ত জানা যায়নি এটি কোন এলাকার ঘটনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *