শেষ রাতে কী করেছিলেন সিদ্ধার্থ, জানাল পরিবার

আচমকা হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত অভিনেতা সিদ্ধার্থ শুক্লা। বৃহস্পতিবার মুম্বইয়ের কুপার হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। বয়স ৪০ বছর। বিগ বস ১৩-এর প্রাক্তন প্রতিযোগি তিনি।

সেই সিজেনের জয়ী ছিলেন। হিন্দি টেলি ধারাবাহিকের বেশ জনপ্রিয় মুখ সিদ্ধার্থ। বুধবার রাতে মায়ের সঙ্গে বাড়ির নীচে পায়চারি করেছিলেন। সকাল সাড়ে ১০টায় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় সিদ্ধার্থকে।

সেখানেই তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। সিদ্ধার্থের মা এবং দুই বোন পুলিশকে জানিয়েছেন, তাঁর মৃত্যুতে কোনও রহস্য নেই। ‘অস্বাভাবিক’ বা ‘মানসিক অবসাদ’-এর মতো শব্দ এ ক্ষেত্রে প্রযোজ্য নয়।

কোনও রকম গুজব না ছড়ানোর অনুরোধ করেছেন তাঁরা। পরিবার জানিয়েছে, বুধবার রাতে খুবই ধীর স্থির ছিলেন সিদ্ধার্থ। রাতের খাবার খেয়ে শান্তিতে ঘুমতে গিয়েছিলেন।

সন্ধ্যাবেলা মায়ের সঙ্গে আবাসনের প্রাঙ্গনে পায়চারিও করেছিলেন তিনি। তার পর আর ঘুম থেকে ওঠেননি তিনি। পরিবারের সদস্যরাই অ্যাম্বুল্যান্স ডেকেছেন সকালে।

কুপার হাসপাতালের মুখপাত্র জানিয়েছেন ‘হাসপাতালে আনার আগেই সিদ্ধার্থর মৃত্যু হয়।’ এই মুহূর্তে পরিবার তাঁর ময়নাতদন্তের রিপোর্টের জন্য অপেক্ষা করছে।

চিকিৎসকের প্রাথমিক অনুমান, হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ‘ব্রোকেন বাট বিউটিফুল’ ওয়েব সিরিজের অভিনেতার। কারও ধারণা, অতিরিক্ত শরীরচর্চার কারণে শরীরে ক্ষতি হয়েছে।

নেটাগরিকদের এক অংশ আবার মনে করছেন, এই মৃত্যু স্বাভাবিক নয়। খুন হয়েছেন বলে অভিযোগ জানাচ্ছেন কেউ কেউ। ইতিমধ্যে ফেসবুক গ্রুপ তৈরি হয়ে গিয়েছে, ‘জাস্টিস ফর সিদ্ধার্থ শুক্ল’। যেখানে ভক্তরা তাঁর মৃত্যুকে হত্যা বলে দাবি করে বিচার চেয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *