ফরিদপুরে দু’র্বৃত্তদের বি’ষে ভেসে উঠল ৫ লাখ টাকার মাছ

ফরিদপুরের ভাঙ্গায় দুর্বৃত্তদের দেয়া বিষে একটি পুকুরের পাঁচ লাখ টাকার মাছ মরে ভেসে উঠেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার সকালে ভাঙ্গা থানায় একটি জিডি করেছেন পুকুর মালিক মাছচাষি কামাল সরদার।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কাউলীবেড়া ইউনিয়নের মুটরা গ্রামের চতলার বিল সংলগ্ন এলাকায়। চাষি কামাল সরদার জানান, প্রতি বছরের মতো এবারো ইজারা নিয়ে পুকুরটিতে মাছ চাষ করেছিলেন তিনি।

দুদিন আগে রাতের কোনো এক সময় পুকুরে বিষ ঢেলে দেয় দুর্বৃত্তরা। এতে বৃহস্পতিবার থেকে পুকুরের মাছ মরে ভেসে উঠতে থাকে। তিনি আরো জানান, পুকুরটি এ বছর দেড় লাখ টাকায় ইজারা নিয়ে ঘের তৈরি করে শোল,

গজার, কৈ, শিং, বোয়াল, চিতলসহ বিভিন্ন দেশীয় প্রজাতির মাছ চাষ করেছিলেন তিনি। হঠাৎ করেই এ ঘটনায় তার মাথায় যেন বাজ পড়েছে। কান্নাজড়িত কণ্ঠে কামাল বলেন, আমি ধার-দেনা করে এখানে টাকা খাটিয়েছি।

মাছগুলো মরে যাওয়ায় চরম বিপদে পড়েছি। এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান রেজাউল হাসনাত দুদু মিয়া বলেন, দুর্বৃত্তদের শনাক্ত করতে সর্বাত্মক চেষ্টা করা হবে। ক্ষতিগ্রস্ত চাষিকে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে। ভাঙ্গা উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা দেবলা চক্রবর্তী জানান, বিষয়টি জেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে জানিয়ে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়া হবে।

ফরিদপুরের ভাঙ্গায় দুর্বৃত্তদের দেয়া বিষে একটি পুকুরের পাঁচ লাখ টাকার মাছ মরে ভেসে উঠেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার সকালে ভাঙ্গা থানায় একটি জিডি করেছেন পুকুর মালিক মাছচাষি কামাল সরদার।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কাউলীবেড়া ইউনিয়নের মুটরা গ্রামের চতলার বিল সংলগ্ন এলাকায়। চাষি কামাল সরদার জানান, প্রতি বছরের মতো এবারো ইজারা নিয়ে পুকুরটিতে মাছ চাষ করেছিলেন তিনি।

দুদিন আগে রাতের কোনো এক সময় পুকুরে বিষ ঢেলে দেয় দুর্বৃত্তরা। এতে বৃহস্পতিবার থেকে পুকুরের মাছ মরে ভেসে উঠতে থাকে। তিনি আরো জানান, পুকুরটি এ বছর দেড় লাখ টাকায় ইজারা নিয়ে ঘের তৈরি করে শোল,

গজার, কৈ, শিং, বোয়াল, চিতলসহ বিভিন্ন দেশীয় প্রজাতির মাছ চাষ করেছিলেন তিনি। হঠাৎ করেই এ ঘটনায় তার মাথায় যেন বাজ পড়েছে। কান্নাজড়িত কণ্ঠে কামাল বলেন, আমি ধার-দেনা করে এখানে টাকা খাটিয়েছি।

মাছগুলো মরে যাওয়ায় চরম বিপদে পড়েছি। এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান রেজাউল হাসনাত দুদু মিয়া বলেন, দুর্বৃত্তদের শনাক্ত করতে সর্বাত্মক চেষ্টা করা হবে। ক্ষতিগ্রস্ত চাষিকে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে। ভাঙ্গা উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা দেবলা চক্রবর্তী জানান, বিষয়টি জেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে জানিয়ে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *