দুই বোন এখন দুই ভাই!

ছিলেন দুই বোন। চিকিৎসকের সুচারু অস্ত্রপচারের পর এখন তারা দুই ভাই। অবাক শোনালেও এই ঘটনা ঘটেছে পাকিস্তানে।তাদের আরও সাতটি বোন রয়েছে। এজন্য সম্পর্কে ও শরীরের পরিবর্তন আনতে চেয়েছিল তারা।

জি নিউজের খবরে বলা হয়েছে, লিঙ্গ পরিবর্তন অস্ত্রপচার বেশ জটিল প্রক্রিয়া। কিন্তু তারা ঝুঁকি নিতে চেয়েছিল। পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের একটি জমিদার পরিবারের সন্তান তারা।

দুই বোন লিঙ্গ পরিবর্তন করে ছেলেতে পরিণত হওয়ায় পরিবারের লোকজনও বেজায় খুশি। পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশে গুজরাত জেলার সোনাবড়ি গ্রামে থাকে দুজন।

বুশরা আবিদ ও বাফিয়া আবিদ ছেলে হওয়ার পর নিজেদের নাম রেখেছে বলিদ আবিদ ও মুরাদ আবিদ। লিঙ্গ পরিবর্তনের পর দুজনেই দারুণ খুশি।

আসলে দুজনেই ছোট থেকে ছেলে হতে চাইতেন। তারা যদি পরস্পরের ভাই হতে পারেন, তাহলে ভাল হয়। এমন ইচ্ছা পুষে রেখেছিলেন মনে। সেই ইচ্ছা পূরণ হওয়ায় দুজনেক খুশির অন্ত নেই।

দুজনেই ছোট থেকে ছেলেদের পোশাক পরতে ভালবাসতেন। তাদের স্বভাবও ছিল অনেকটাই ছেলেদের মতো। তাদের আরও সাতটি বোন রয়েছে। সেই বোনেরা দুই ভাইকে পেয়ে খুব খুশি।

ইসলামাবাদে হয়েছে তাদের অপারেশন। পাকিস্তান ইন্সটিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স এর ১২ জন ডাক্তার মিলে এই জটিল অস্ত্রোপচার করেছেন। গত দুবছর ধরে সিনিয়র ডাক্তার আমজাদ চৌধুরির কাছে চিকিত্সাধীন ছিলেন দুজন।

এই অস্ত্রপচারের আগে ও পরে শারীরীক পরীক্ষা করাতে হয়। কাউন্সেলিং-এর প্রয়োজন পড়ে। অস্ত্রোপচারের পর ওষুধের মাধ্যমে হরমোনের উতপাদন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *