স্বামীর পদবিও ফেলে দিলেন শ্রাবন্তী, তবে কি ডি’ভোর্স হয়েই গেল?

এতদিন তার ইনস্টাগ্রামের পাতায় জ্বলজ্বল করত শ্রাবন্তী সিং নামটি । সম্প্রতি সেটি বদলে শুধুই শ্রাবন্তী করে দিয়েছেন নায়িকা। পাশে রয়েছে লাল রঙের হৃদয়ের ইমোজি। এ নিয়ে তার ডিভোর্সের ব্যাপারে শোরগোল বাড়লো আরও।

যেন অনেকটাই স্পষ্ট হয়ে এলো শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়ের সংসার ভাঙার বিষয়টি। স্রেফ আনুষ্ঠানিক ঘোষণার অ’পেক্ষা। এ নিয়ে তিনবার হলো বিয়ে করে সংসারী হয়েছেন নায়িকা শ্রাবন্তী। কিন্তু দাম্পত্য সুখ যেন তার জন্য নির্ধারিত নয়।

নইলে ভালোবেসে গড়া সংসার এত দ্রুত ভাঙবে কেন? সেই হিসাব শ্রাবন্তী করেন কি না কে জানে! তবে তার অনুরাগীরা ঠিকই করছেন। সর্বশেষ বিয়েটাও বছর ঘুরতে না ঘুরতেই বিচ্ছেদের কালো ছায়ায় আচ্ছন্ন হয়েছে।

যদিও শ্রাবন্তী বা তার স্বামী এ নিয়ে কোনো কথাই বলছেন না। তবে সোশ্যাল মিডিয়ায় তাদের সাম্প্রতিক কার্যক্রম অনেক স’ন্দেহই বাড়াচ্ছে। যেমন- দুজনেরই সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেল থেকে একে অ’পরের ছবি ডিলিট করে দিয়েছেন।

একসঙ্গে তাদের আর কোথাও দেখা যাচ্ছে না। সাক্ষাৎকারে বিয়ে নিয়ে প্রশ্ন উঠলে এড়িয়ে যাচ্ছেন দুজনই। এর আগে পরিচালক রাজীব বিশ্বা’সের সঙ্গে বিয়ে হয়েছিল শ্রাবন্তীর ৷ রাজীব ও শ্রাবন্তীর এক ছে’লেও রয়েছে৷ অ’ভিমন্যুর ডাক নাম ঝিনুক।

রাজীবের সঙ্গে ছাড়াছাড়ির পর মডেল কৃষ্ণবিরাজের সঙ্গে স’ম্পর্কে জড়ান শ্রাবন্তী ৷ বিয়েও করেন ৷ সে স’ম্পর্কও এক বছর ঘুরতে না ঘুরতে ভেঙে যায় ৷ কৃষ্ণবিরাজকে ডিভোর্স দেন নায়িকা নিজেই।

তারপর রোশন সিংয়ের সঙ্গে আলাপ, প্রে’ম ও জমজমাট বিয়ের অনুষ্ঠান ৷ ভালোই চলছিল সব ৷ হঠাৎ এমনকি ঘটল, যাতে সংসারের দেয়ালে ভাঙন? সেই উত্তর অবশ্য মেলেনি। তা জানতেই সবার অ’পেক্ষা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *