ভোটারদের মন পেতে রান্না করল বিরিয়ানি, নিয়ে গেল প্রশাসন

ভোটারদের মন পেতে বড় বড় ডেকচিতে চলছে বিরিয়ানি রান্না। ঠিক এর অন্যপাশেই চলছে ভোটগ্রহণ। এমনই আয়োজন করলেন কুষ্টিয়া পৌরসভার ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের এক কাউন্সিলর প্রার্থী। তবে শেষমেষ বৃথা গেল সব আয়োজন।

সব বিরিয়ানি নিয়ে গেল প্রশাসন। শনিবার ঘটনাটি ঘটেছে কুষ্টিয়া পৌরসভার ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের বারখাদা বালক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভোটকেন্দ্র এলাকায়। প্রায় ৯ মণ চালের বিরিয়ানি রান্না করা হচ্ছিল বলে জানিয়েছেন রান্নার কাজে নিয়োজিতরা।

স্থানীয়রা জানায়, বারখাদা বালক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রের পাশে সকাল থেকে বিরিয়ানি রান্নার আয়োজন করেন কাউন্সিলর প্রার্থী রবিউল ইসলাম রবি। বড় বড় ডেকচিতে চলছিল রান্না।

সেখান থেকে প্যাকেট করে ভ্যানে ভরে ভোটারদের বাড়ি বাড়ি বিরিয়ানি পাঠানো হচ্ছিল। কিন্তু সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে খবরটি ছড়িয়ে পড়লে সেখানে অভিযানে যায় ভ্রাম্যমাণ আদালত।

জব্দ করা হয় ১০টি ডেকচি ও ১০০ প্যাকেট বিরিয়ানি। পরে জব্দ করা খাবার এতিমখানায় দেয়া হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও খোকসা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ইসাহাক আলী জানান, নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে এ খাবার জব্দ করা হয়েছে।

এর আগে ভোটারদের মাঝে নারিকেল তেল বিতরণ করতে গিয়ে ১০ হাজার টাকা জরিমানা গুনেছেন কাউন্সিলর প্রার্থী রবিউল ইসলাম রবি। এছাড়া রবির লোকজন প্রতিপক্ষের প্রার্থীর ওপর হামলা চালিয়ে তিনজনকে আহত করে। এ ঘটনায় তার নামে থানায় মামলাও হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *