পেন’শনে’র টেন’শন শেষ, আসছে ‘সরল পেন’শন যোজনা’

Sabbir Rahman 0

বার্ধক্য বয়সের ব্যক্তিদের ভবিষ্যত সুরক্ষার জন্য নানান রকম পরিকল্পনা রয়েছে। প্রবীণ ব্যক্তিদের অবসর গ্রহণের পরও যাতে তাদের কোনো রকম অসুবিধা না হয়, সেই কারণে বিভিন্ন সংস্থা নানান রকম বিমা প্রদান করে থাকে।

আর এই সকল বীমার মধ্যে থেকে বার্ধক্যদের সবথেকে ভরসাযোগ্য বীমা হল পেনশন পরিকল্পনা। কারণ এর ফলে প্রবীণ ব্যক্তিদের ভবিষ্যৎ সম্পূর্ণ সুরক্ষিত থাকে।

এই পেনশন পরিকল্পনার ফলে অবসর গ্রহণের পরও একজন বিনিয়োগকারী নিয়মিতভাবে আয় করতে পারেন। বর্তমান দিনে পেনশন পরিকল্পনা নামে প্রচুর জালিয়াতি হচ্ছে।

এই জালিয়াতি যাতে না হয় তার জন্য IRDAI বিমা সংস্থাগুলি সরল পেনশন প্রকল্প বাস্তবায়ন করার চেষ্টা করছে। আশা করা যাচ্ছে আগামী এপ্রিল মাসের ১ তারিখ থেকে এই সরল পেনশন প্রকল্প বাস্তবায়ন করা সম্ভবপর হবে।

সরল পেনশন পরিকল্পনার অধীনে একজন বীমাকারীর নামে কেবল মাত্র দুটি বার্ষিকী বিকল্প থাকবে। IRDAI-এর গাইডলাইন মতে সরল পেনশন প্রকল্পের সর্বনিম্ন বার্ষিক পরিমাণ হল মাসে ১ হাজার টাকা, ত্রৈমাসিক ৩ হাজার টাকা, ছয় মাস অন্তর ৬ হাজার টাকা অথবা বার্ষিক ১২ হাজার টাকা হবে।

IRDAI বলছে যে এই উদ্যোগের ফলে গ্রাহকদের পক্ষে পরিকল্পনাটি নির্বাচন করা অনেক সহজ হবে। IRDAI-এর নির্দেশিকা অনুসারে পলিসি শুরুর সময় থেকে ৬ মাস পরেও যে কোনো সময় পলিসি বন্ধ করা যেতে পারে।

সরল পেনশন প্রকল্পের সুবিধা IRDAI-এর মতে পেনশন প্ল্যানে আপনি যত টাকা নিয়োগ করবেন তত টাকা তো পাবেনই, পাশাপাশি আপনি পাবেন Annuity-এর সুবিধা। বিনিয়োগকারী জীবনভর এই সুবিধা পাবেন।

পরবর্তীতে বিনিয়োগকারীর মৃত্যুর পর তাঁর স্ত্রীও এই সুবিধা পাবেন নিজের জীবিত থাকা অবস্থায়। বিনিয়োগকারী এবং তার স্ত্রীর মৃত্যুর পর তাদের দুজনের সম্পত্তির আইনানুগ উত্তরাধিকারী বিনিয়োগ করা অর্থের ১০০% ফেরত পাবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.