আগামী বছরের ডিসেম্বরে উদ্বোধন হতে পারে পদ্মা সেতু

আগামী বছরের ডিসেম্বরে উদ্বোধন হতে পারে পদ্মা সেতু আর মাত্র চারটি স্প্যান বসলেই পুরোপুরি দৃশ্যমান হবে পদ্মা সেতু। কর্তৃপক্ষের আশা, ২০২১ সালের ডিসেম্বরে বিজয়ের ৫০ বছর পূর্তিতে উদ্বোধন করা হবে পদ্মা সেতু।

চলতি মাসে দুই আর বাকি দুটি বসানো হচ্ছে আগামী মাসে। সব কিছু ঠিক থাকলে ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে ৬ দশমিক এক-পাঁচ কিলোমিটারেরই স্প্যান বসানো শেষ হবে। শিগগিরই সেতুটির অবশিষ্ট চারটি স্প্যান বসানোর প্রস্তুতি চলছে।

পদ্মা সেতু বাংলাদেশের একটি বৃহত্তম অবকাঠামো, যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্যোগে করা হচ্ছে। নিজস্ব অর্থায়নের মাধ্যমে ২০১৪ সালের ডিসেম্বরে এর নির্মাণ কাজ শুরু হয়।

অর্থনীতিবিদরা বলেছেন, পদ্মা সেতু দেশে একটি সমন্বিত যোগাযোগ ব্যবস্থা গড়ে তুলতে সহায়তা করবে, যা বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের অর্থনৈতিক দৃশ্যপট পাল্টে যাবে।

তারা বলেন, সরকার অ’ত্যন্ত আশাবাদী যে নতুন এই বৃহত্তম কাঠামো ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে শেষ হয়ে গেলে দেশের জিডিপি ১ দশমিক ২ শতাংশ বাড়িয়ে তুলতে পারে। পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ শেষ হওয়ার পর এই অঞ্চলটিতে এক যুগান্তকারী উন্নয়নের সূচনা করবে এবং বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানও উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পাবে।

মূল সেতুটি নির্মাণের কাজটি চীনা ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান ‘চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কম্পানি’ করছে। অন্যদিকে, চীনা কম্পানি সিনো হাইড্রো কর্পোরেশন এতে নদী শাসনের কাজটি করছে। উল্লেখ্য, ২০২১ সালে পদ্মা বহু’মুখী সেতুতে যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *